1. raselahamed29@gmail.com : admin :
  2. riajul.kst@gmail.com : riajul.kst :
শুক্রবার, ০৭ মে ২০২১, ০৭:০৩ পূর্বাহ্ন

কুষ্টিয়ার আদ্বীন হাসপাতালে আবারও মোটর সাইকেল চুরি, নেই সিসি ক্যামেরা

Reporter Name
  • আপডেট টাইম : সোমবার, ২২ ফেব্রুয়ারী, ২০২১
  • ৪৮৯ বার নিউজটি পড়া হয়েছে

আরিফ, কুষ্টিয়া : কুষ্টিয়া শহরের স্বনামধন্য আদ্বীন হাসপাতালে আবারও মোটর সাইকেলে চুরির ঘটনা ঘটেছে। আজ সোমবার সন্ধ্যায় এ ঘটনা ঘটে।
সম্প্রতি দেশের বিভিন্ন স্থানে চুরি ও সহিংসতা, হত্যাকাণ্ডসহ অপরাধ দমন ও অপরাধীদের শনাক্ত করার জন্য ক্লোজড সার্কিট (সিসি) ক্যামেরা কার্যকরী ভূমিকা পালন করছে। আগের চেয়ে সম্প্রতি নিরাপত্তার জন্য সিসি ক্যামেরার গুরুত্ব বেড়েছে কয়েকগুণ। এতে অপরাধীকে সহজে চিহ্নিত করা সম্ভব হচ্ছে। কিন্তু নিরাপত্তার জন্য প্রয়োজনীয়তা থাকলেও আদ্বীন হাসপাতালে অনেক গুরুত্বপূর্ণ স্থান নেই পর্যাপ্ত সিসি ক্যামেরা।
স্থানীয় সূত্রে জানা যায় আদ্বীন হাসপাতালে রোগী দেখতে আসে দহকূলা জোতপাড়া এলাকার আপিল উদ্দিনের ছেলে সোহেল মোটর সাইকেল করে আসেন তিনি। তিনি তার ব্যবহৃত মোটর সাইকেলটি আদ্বীন হাসপাতালে রেখে যান। সন্ধ্যা ৭.৩০ মিনিটের সময় রোগী দেখা ও খোঁজখবর শেষে নিচে এসে দেখে তার ব্যবহৃত রেজিঃ কুষ্টিয়া-হ-১৬-১১০৪ নম্বর মোটর সাইকেলটি আর নেই। পরে মডেল থানায় জিডি দায়ের করে।
আদ্বীন হাসপাতালের গুরুত্বপূর্ণ স্থানে সিসি ক্যামেরা না থাকায় যেমন বাড়ছে বহিরাগতদের চলাচল তেমনি বেড়েছে চুরির মতো ঘটনা। এতে বড় ধরনের চুরি শঙ্কায় রয়েছেন রোগীরা। এখানে বেশিরভাগ গর্ভবর্তী হয়ে চিকিৎসা নিতে আসেন তারা।
সেবা নিতে আসা রোগীরা জানান, সিসি ক্যামেরা না থাকায় আর দারোয়ানদের উদাসীনতায় তাদের জিনিসপত্র হারিয়ে যাচ্ছে। পাশাপাশি অরোগীরাও অবাধে প্রবেশ করতে পারে, ফলে চুরি হচ্ছে। যদি সিসি ক্যামেরা না লাগানো হয় তাহলে চুরির মতো ঘটনা বন্ধ করা সম্ভব নয়।
আদ্বীন হাসপাতালের ম্যানেজার রবিউল আল তাজা সংবাদকে বলেন ‘ইতোমধ্যে আমরা সিসি ক্যামেরার বিষয়টি নিয়ে কাজ শুরু করেছি। এ ছাড়া শিগগিরই যেসব স্থানে সিসি ক্যামেরা প্রয়োজন তার ব্যবস্থা করা হবে বলেও জানান।
উল্লেখ্য এর আগেও অনেক বার আদ্বীন হাসপাতাল থেকে বেশকিছু মোটর সাইকেল হারিয়ে গেছে। মডেল থানার পুলিশ আদ্বীন হাসপাতাল কর্তৃৃপক্ষ অবগত করালেও তারা কোন ব্যবস্থা গ্রহণ করেনি। করেনি কোন সিসি ক্যামেরার ব্যবস্থা।

নিউজটি শেয়ার করুন..

এ জাতীয় আরো খবর ....

All rights reserved © 2020 tajasangbad.com
Design & Developed BY Anamul Rasel